স্কুলে ভর্তিতে অভিনব শর্ত!

নিউজ ডেস্ক:

ছেলেমেয়েদের স্কুলে ভর্তি করাতে দুটি শর্ত দিয়েছে স্কুল কর্তৃপক্ষ। আর অভিভাবকরা এই দুটি শর্ত মানলেই কেবল তাদের ছেলেমেয়েদের ভর্তি নেয়া হচ্ছে।

শর্ত দুটি হচ্ছে- ১. সাবালক না হলে ছেলেমেয়েদের বিয়ে দেয়া যাবে না এবং ২. নাবালক অবস্থায় উপার্জন করতেও পাঠানো যাবে না।

এ ঘটনায় রীতিমতো শোরগোল পড়েছে ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের পশ্চিম মেদিনীপুর জেলায়। জেলার জোতঘনশ্যাম নীলমণি হাইস্কুলে ছেলেমেয়েদের ভর্তি করাতে হলে অভিভাবকদের মানতে হবে এই দুটি শর্ত। খবর এবেলার।

স্কুলটিতে বর্তমান ছাত্রছাত্রীর সংখ্যা প্রায় দুই হাজার, শিক্ষক-কর্মচারী রয়েছেন ৫৬ জন। বছরের শুরুতে অন্যান্য স্কুলের মতো ওই স্কুলেও বিভিন্ন শ্রেণিতে ভর্তির প্রক্রিয়া চলছে। সেই ভর্তির ফর্মের সঙ্গে জুড়ে দেয়া হচ্ছে পৃথক একটি অঙ্গীকারপত্র। সেখানে অভিভাবকরা সম্মতি দিলে তবেই তাদের ছেলেমেয়েদের ভর্তি করানো হচ্ছে।

স্কুলের এই অভিনব উদ্যোগের প্রশংসা করেছেন দাসপুরের বিধায়ক মমতা ভুঁইয়া ও জেলা পরিষদের শিক্ষা কর্মাধ্যক্ষ শ্যামাপদ পাত্র। এমন উদ্যোগের ফলে বাল্যবিয়ে ও শিশুশ্রমের প্রবণতা কমতে পারে বলে মত দিয়েছেন তারা।

অভিভাবকেরাও স্কুলের এই উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়েছেন।

স্কুলের প্রধান শিক্ষক নির্মল দাসকর্মকার বরেন, অল্প বয়সে বিয়ে দেয়া আর নাবালক বয়সেই রোজগার করতে পাঠানোর প্রবণতা অস্বাভাবিক হারে বেড়ে গেছে পশ্চিমবঙ্গে। এই উদ্যোগের ফলে সেই প্রবণতা কিছুটা কমতে পারে বলে আশা করা যাচ্ছে।

Comments

comments