বাংলাদেশ থেকে বিশ্ব ইজতেমার স্থান সরিয়ে নেয়ার হুমকি

নিউজ ডেস্ক:

মওলানা সা’দকে তাবলিগ জামাতের আমিরের পদ সরিয়ে দেয়া হলে বিশ্ব ইজতেমার স্থান বাংলাদেশ থেকে মালয়েশিয়ায় সরিয়ে নেয়ার হুমকি দিয়েছে মালয়েশিয়া তাবলিগের শূরা কর্তৃপক্ষ। রোববার বাংলাদেশ তাবলিগ জামাতকে লেখা চিঠিতে এ হুমকি দেয়া হয়।

সতর্কবার্তায় বলা হয়, আয়োজকরা যদি নিজামুদ্দিনের প্রতিনিধিদের থেকে আমির ও ফয়সাল নির্বাচনের মূল্যবোধ ও ঐতিহ্য মানতে ব্যর্থ হন, তা হলে বাংলাদেশের বদলে মালয়েশিয়ায় বিশ্ব ইজতেমা আয়োজনের প্রস্তাব করা হবে।

বাংলাদেশ তাবলিগ জামাত সূত্র জানায়, মালয়েশিয়া শূরার চিঠিতে জানানো হয়েছে, মওলানা মুহম্মদ সা’দের বর্তমান পদ-পদবি নিয়ে বাংলাদেশ সরকারের সঙ্গে সংশ্নিষ্টদের বৈঠক হয়েছে। উদ্ভূত পরিস্থিতিতে মালয়েশিয়া তাবলিগের শূরা সবাইকে জানাচ্ছে, মওলানা সা’দই হচ্ছেন তাবলিগ জামাতের বর্তমান আমির। যেভাবে অন্য সবাই মওলানা সা’দকে সর্বোচ্চ শ্রদ্ধা ও মূল্যায়ন করছেন, বাংলাদেশ সরকারও সেভাবেই মূল্যায়ন করবে। কারণ তিনি ও তার পূর্বসূরিরা নিজামুদ্দিন থেকে এসেছেন এবং তারা আল্লাহর ইচ্ছায় এর আগে দায়িত্ব পেয়েছিলেন। আল্লাহ নিজামুদ্দিনকেই তাবলিগ জামাতের কর্মকাণ্ডের পুনরুজ্জীবন দানের জন্মস্থান হিসেবে বেছে নিয়েছেন।

বিশ্বজুড়ে তাবলিগ জামাতের মারকাজ হিসেবে পরিচিত দিল্লির নিজামুদ্দিন। ওই মারকাজের প্রধান মুরুব্বিদের একজন মওলানা সা’দ। তার কিছু বক্তব্যে বছরজুড়েই কওমিপন্থিরা ক্ষোভ প্রকাশ করেন। একই সঙ্গে বাংলাদেশে তাবলিগে ফয়সালের মধ্যে মওলানা মুহম্মদ জুবায়ের, মওলানা রবিউল হক, মওলানা ওমর ফারুক মওলানা সা’দের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছেন।

এই বিতর্কের জের ধরে মওলানা সা’দ এবারের বিশ্ব ইজতেমায় যোগ না দিলে এটি স্থানীয় ইজতেমায় পরিণত হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। কারণ বিভিন্ন সূত্র মতে, মওলানা সা’দ না এলে অন্য কোনো দেশের মুসল্লিরা ইজতেমায় অংশ নিতে আসবেন না।

Comments

comments