ট্রাম্প-কিমের পরবর্তী বৈঠক ভিয়েতনামে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:

পরমাণু ইস্যু নিয়ে উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উনের সঙ্গে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের পরবর্তী বৈঠক ভিয়েতনামে অনুষ্ঠিত হবে। আগামী ২৭-২৮ ফেব্রুয়ারি দ্বিতীয় বৈঠকে বসবেন এক বছর আগের যুদ্ধংদেহী দুই নেতা। এর আগে গত বছরের জুনে সিঙ্গাপুরে প্রথমবারের মতো বৈঠক করেন তারা।

বিবিসি বলছে, গতকাল মঙ্গলবার জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণ দেওয়ার সময় ট্রাম্প নিজেই এ কথা জানিয়েছেন।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট বলেন, আগামী ২৭-২৮ ফেব্রুয়ারি তিনি ভিয়েতনামে কিম জং উনের সঙ্গে বৈঠক করবেন।

গত বছরের প্রথম বৈঠকের পর থেকেই দ্বিতীয় বৈঠকের ব্যাপারে প্রচেষ্টা অব্যাহত ছিল। এ নিয়ে সম্প্রতি উত্তর কোরিয়ার এক শীর্ষ কর্মকর্তা ওয়াশিংটন সফর করেন। তখনই আভাস দেওয়া হয়, ফেব্রুয়ারির শেষের দিকে দুই নেতা আবার বসবেন। তবে তখন নির্দিষ্ট কোনো দিন ও স্থানের ব্যাপারে কিছু বলা হয়নি।

মঙ্গলবার রাতের ভাষণে ট্রাম্প বলেন, ‘আমাদের হোস্টেজেস সমর্পিত হয়েছে, পারমাণবিক পরীক্ষা বন্ধ আছে এবং গত ১৫ মাসে কোনো ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা হয়নি।’

তিনি বলেন, ‘আমি যদি যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত নাও হতাম, তারপরও আমি উত্তর কোরিয়ার ব্যাপারে আমার বর্তমান অবস্থানে থাকতাম।’

ট্রাম্প বলেন, ‘এখনও অনেক কাজ বাকি আছে, তবে কিম জং উনের সঙ্গে আমার সম্পর্ক ভালো।’

উল্লেখ্য, উত্তর কোরিয়ার পারমাণবিক ও ক্ষেপণাস্ত্র কর্মসূচি নিয়ে দীর্ঘ দিনের হুমকি পাল্টা হুমকি এবং তীব্র বাক-যুদ্ধের পর অবশেষে গত বছরের ১২ জুন সিঙ্গাপুরে আলোচনায় বসেন ট্রাম্প ও কিম। বৈঠকে উভয় নেতা কোরীয় উপদ্বীপকে পরমাণু অস্ত্র মুক্ত করার ব্যাপারে একমত হন।

কিন্তু ওই বৈঠকের পর থেকে এ ব্যাপারে উল্লেখযোগ্য কোনো অগ্রগতি লক্ষ করা না গেলেও উত্তর কোরিয়ার আর কোনো ক্ষেপণাস্ত্র বা হাইড্রোজেন বোমার পরীক্ষা চালায়নি।

Comments

comments