আর্সেনালকে উড়িয়ে দিয়ে চেলসি চ্যাম্পিয়ন

স্পোর্টস ডেস্ক:

একটি দুটি বছর নয়, ২৯ বছরের কোচিং ক্যারিয়ার মাউরিজিও সারির। এই লম্বা সময়ে তিনি বিভিন্ন দেশের ১৯টি ক্লাবের কোচের দায়িত্ব পালন করেছেন। কিন্তু কখনো কোনো বড় শিরোপা জিততে পারেননি।

অবশেষে তার সেই আক্ষেপ ঘুচিয়েছে তার চেলসির শিষ্যরা। বুধবার রাতে উয়েফা ইউরোপা লিগের ফাইনালে স্বদেশি ক্লাব আর্সেনালকে ৪-১ গোলে উড়িয়ে দিয়ে শিরোপা জিতেছে চেলসি।

সবশেষ ২০১২ সালে ইউরোপা লিগের প্রথম শিরোপা জিতেছিল ব্লুজরা। তার ৭ বছর পর দ্বিতীয় শিরোপা ঘরে তুললো তারা। দুইবার ফাইনালে উঠে দুইবারই শিরোপা ঘরে তুললো চেলসি।

অন্যদিকে ১৯ বছর পর ফাইনালে উঠেছিল আর্সেনাল। সুযোগ ছিল প্রথম শিরোপা জয়ের। কিন্তু আবারো রানার্স-আপ হয়েই সন্তুষ্ট থাকতে হল তাদেরকে।

আজারবাইজানের বাকু শহরের অলিম্পিক স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত ফাইনাল ম্যাচে অবশ্য প্রথমার্ধে গোলের দেখা পায়নি কেউ। দ্বিতীয়ার্ধে হয় পাঁচ-পাঁচটি গোল। তার মধ্যে চেলসি করে চারটি। আর আর্সেনাল করে একটি। চেলসির হয়ে জোড়া গোল করেছেন ইডেন হ্যাজার্ড (৬৫ ও ৭২ মি.)। পাশাপাশি তিনি একটি গোলে সহায়তাও করেছেন।

চেলসির হয়ে শেষ ম্যাচটি খেলে ফেলেছেন বেলজিয়ামের এই তারকা। সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে আগামী মৌসুমে তিনি স্প্যানিশ জায়ান্ট রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে খেলতে যাচ্ছেন। ম্যাচ শেষে ২৮ বছর বয়সী হ্যাজার্ড বলেছেন, ‘আমি মনে করছি এটাই বিদায়ী ম্যাচ। তবে, ফুটবলে কখন কী হয়, সেটা বলা কঠিন।’

কোচ সারি অবশ্য হ্যাজার্ডের যেকোনো সিদ্ধান্তের প্রতি শ্রদ্ধাশীল থাকবেন বলে জানিয়েছেন, ‘আমি জানি সে চেলসি ছাড়তে চাচ্ছে। তার সিদ্ধান্তের প্রতি আমাদের সম্মান জানাতে হবে। সে অসাধারণ একজন খেলোয়াড়। তাকে বুঝতে আমার দুই-তিন মাস সময় লেগেছে। এখন আমি তার সম্পর্কে জানি। সে দারুণ একজন মানুষ। বিস্ময়কর একজন খেলোয়াড়।’

চেলসির হয়ে একটি করে গোল করেছেন অলিভার জিরোড (৪৯ মি.) ও পেদ্রো (৬০ মি.)। আর্সেনালের পক্ষে একটি গোল করেছেন আলেক্স আইয়োবি। যেটা কেবল ব্যবধানই কমিয়েছে। অবশ্য ৬৯ মিনিটে হওয়া তার গোলটি ছিল দেখার মতো। ডি বক্সের বাইরে থেকে নেওয়া বুলেট গতির এক শটে বল জালে পাঠান তিনি।

Comments

comments