পুকুরের ডুবে রুয়েট শিক্ষার্থীর মৃত্যু

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি:
সেলফি তুলতে গিয়ে পুকুরে ডুবে রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (রুয়েট) মহিউদ্দিন তাজ (২৩) নামের এক শিক্ষার্থী মারা গেছেন। বৃহস্পতিবার দুপুরে (৩০ জানুয়ারি) বিশ্ববিদ্যালয়ের ভেতরে একটি পুকুরে ওই শিক্ষার্থী ডুবে মারা যায়। নগরীর মতিহার থানার ওসি এসএম মাসুদ পারভেজ বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

মহিউদ্দিন তাজ বিশ্ববিদ্যালয়ের তড়িৎ ও তড়িৎ প্রকৌশল বিভাগের শিক্ষার্থী ছিলেন। সে নওগাঁ জেলার পতিœতলা উপজেলার কয়রা গ্রামের এনামুল হকের ছেলে।

প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে ওসি মাসুদ বলেন, বৃহস্পতিবার দুপুরে পুকুরের পাড়ে গিয়ে সেলফি তুলছিলেন তাজ। এ সময় তার ফোনটি হাত থেকে পুকুরে পড়ে যায়। তখন ফোনটি খুঁজতে সে পুকুরে নামে। প্রথমবার খোঁজাখুজি করে না পেলে কিছুক্ষণ পর সে আবার পুকুরে নামে। তখন সে পুকুরে ডুবে যায়। পুকুর পাড়ে দাঁড়িয়ে থাকা কয়েকজন যুবক ও রুয়েটে দায়িত্বরত আনসারদের সহায়তায় তাজকে উদ্ধার করা হয়।

পরে রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এ ঘটনায় থানায় অপমৃত্যুর মামলা করা হবে বলেও জানান ওসি। রুয়েটের ছাত্রকল্যাণ পরিচালক রবিউল আউয়াল বলেন, তাজের লাশ হাসপাতালের হিমাগারে রাখা হয়েছে। তার বাড়ির লোকজনকে খবর দেওয়া হয়েছে।

(Visited 37 times, 1 visits today)