ঝিনাইদহ ভেটেরিনারি কলেজে নিয়োগ হাইকোর্টে স্থগিত

বাকৃবি প্রতিনিধি:
ঝিনাইদহ সরকারি ভেটেরিনারি কলেজে প্রফেসর, সহযোগী প্রফেসর ও সহকারী প্রফেসর পদে (৩০টি পদ) নিয়োগ প্রক্রিয়া আগামী চার মাসের জন্য স্থগিতাদেশ দিয়েছে হাইকোর্টের একটি বেঞ্চ।

বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বাকৃবি) পশুপালন অনুষদের ৩ জন গ্র্যাজুয়েট হাইকোর্টে রিট করেন। হাইকোর্টের ১১ নং আদালতের বিচারপতি মির্জা হোসেন হায়দার ও একেএম জহিরুল হকের সমন্বয়ে গঠিত আদালত রিট পিটিশনের শুনানি শেষে বৃহ:স্পতিবার (১৯ নভেম্বর) লিখিত স্থগিতাদেশ দেয়।

জানা যায়, পোলট্রি বিজ্ঞান, ডেইরি বিজ্ঞান, পশুপুষ্টি, পশুবিজ্ঞান এবং পশু প্রজনন ও কৌলি বিজ্ঞান বিভাগে স্নাতকোত্তর ডিগ্রি বাকৃবির একমাত্র পশুপালন অনুষদ থেকেই দেওয়া হয়। অথচ গত ১১ই ফেব্রুয়ারি বাংলাদেশ সরকারি কর্ম কমিশন (বিপিএসসি) থেকে দেওয়া ওই নিয়োগ বিজ্ঞপ্তিতে পশুপালনে গ্র্যাজুয়েটদের জন্য আবেদনের সুযোগ রাখা হয়নি। ঝিনাইদহ সরকারি ভেটেরিনারি কলেজের বিভিন্ন পদে শুধুমাত্র ভেটেরিনারি গ্র্যাজুয়েটদের জন্য আবেদনের সুযোগ রাখা হয়েছে।

এদিকে ওই সব পদে নিয়োগের ক্ষেত্রে কেন পশুপালনে গ্র্যাজুয়েটরা আবেদন করতে পারবে না তা প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের সচিব, প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক, ঝিনাইদহ সরকারি ভেটেরিনারি কলেজের অধ্যক্ষ, বিপিএসসির চেয়ারম্যান, পরিচালকসহ ৭ জনের কাছে জানতে চাওয়া হয়েছে।

উল্লেখ্য, আগামী সোমবার (২৩ নভেম্বর) বাংলাদেশ সরকারি কর্ম কমিশন (বিপিএসসি) এর কার্যালয়ে প্রফেসর, সহযোগী প্রফেসর ও সহকারী প্রফেসর পদে মৌখিক পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবার কথা ছিল।

Comments

comments