রাবিতে চাকরিপ্রত্যাশী ছাত্রলীগ-শিক্ষক ধাক্কাধাক্কি, সিন্ডিকেট সভা স্থগিত

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) সিন্ডিকেট সভাকে কেন্দ্র করে বর্তমান ভিসিবিরোধী শিক্ষকদের সাথে চাকরিপ্রত্যাশী ছাত্রলীগ নেতাদের ধাক্কাধাক্কির ঘটনা ঘটেছে। পরে উত্তেজনাকর পরিস্থিতির মুখে সিন্ডিকেট সভা স্থগিত করে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

মঙ্গলবার (৪ মে) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্যের বাসভবনের সামনে এ ঘটনা ঘটে। এসময় বেশ কয়েকজন শিক্ষক লাঞ্ছিত হন।

বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে জানা যায়, আগামী বৃহস্পতিবার (৬ মে) বর্তমান উপাচার্য অধ্যাপক এম আব্দুস সোবহানের মেয়াদ শেষ হচ্ছে। সংশ্লিষ্টদের ধারণা, উপাচার্য হিসেবে এটিই তার শেষ সিন্ডিকেট সভা। এ সভায় অবৈধভাবে পছন্দের প্রার্থীদের নিয়োগ দেওয়া হবে।

অধ্যাপক সোবহান দীর্ঘদিন থেকে পছন্দের প্রার্থীদের নিয়োগ দেওয়ার চেষ্টা করছেন বলে অভিযোগ রয়েছে। শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের নিষেধাজ্ঞার পরেও আজকের সিন্ডিকেটে পছন্দের প্রার্থীদের অবৈধভাবে নিয়োগ দেবেন এমন আশঙ্কায় সভা বন্ধের দাবিতে সকাল ৯টা থেকে ভিসির বাসভবনের সামনে দুর্নীতিবিরোধী শিক্ষকেরা অবস্থান নেন। তবে তাদের আগেই উপাচার্যের বাসভবনের গেটে অবস্থান নেয় ছাত্রলীগের বর্তমান ও সাবেক সদস্যরা। তাদের অধিকাংশই চাকরিপ্রত্যাশী।

সকাল ১০টার দিকে আন্দোলনকারী শিক্ষকরা উপাচার্যের বাসভবনে ঢুকতে চাইলে ছাত্রলীগের নেতারা বাধা দেয়। শিক্ষকরা জোরপূর্বক প্রবেশের চেষ্টা করলে ছাত্রলীগের নেতারা শিক্ষকদের ধাক্কা দেয়। এসময় আকাশ নামে ছাত্রলীগের বহিরাগত এক কর্মী শিক্ষকদের গুলি করে হত্যার হুমকি দেয় বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। আকাশের বাড়ি বিশ্ববিদ্যালয়সংলগ্ন মেহেরচন্ডী এলাকায় বলে জানা গেছে।

আন্দোলনকারী শিক্ষকদের প্রতিনিধি ও বাংলা বিভাগের অধ্যাপক সফিকুন্নবী সামাদী বলেন, আমরা উপাচার্যের সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে এসেছি। সাক্ষাৎ না হওয়া পর্যন্ত যাব না। তারা ভাড়াটে নিয়ে এসেছে আমাদের আন্দোলন বন্ধ করতে।

প্রক্টর অধ্যাপক লুৎফর রহমান বলেন, কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা যেন না ঘটে আমরা সেই চেষ্টাই করছি। তাছাড়া আজকের সিন্ডিকেটে নিয়োগসংক্রান্ত কোনো বিষয় নেই।

এদিকে মিটিং ঘিরে উত্তেজনাকর পরিস্থিতির সৃষ্টি হওয়ায় সিন্ডিকেট সভা স্থগিত করা হয়েছে।

  •  
  •  
  •  
  •  

Tags: , ,