মাস্ক না পড়লে কোন নাগরিক ওই রাষ্ট্রীয় সেবা পাবেনা: প্রেসিডেন্ট রুহানি

নিউজ ডেস্কঃ

মহামারি করোনাভাইরাস তাণ্ডব চালাচ্ছে সারা বিশ্বে। ব্যতিক্রম নয় ইরানও। দেশটিতে আবারও করোনা আক্রান্ত বাড়তে শুরু করায় নতুন করে বেশ কিছু বিধি-নিষেধ আরোপ করা হয়েছে। দেশটির প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি শনিবার বলেছেন, ইরানের যে নাগরিকরা মাস্ক পরবেন না তারা রাষ্ট্রীয় সেবা থেকে বঞ্চিত হবেন। আর কোনো প্রতিষ্ঠান স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে ব্যর্থ হলে এক সপ্তাহের জন্য সেটি বন্ধ করে দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন রুহানি।

রুহানি আরও বলেছেন, যারা করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন অন্যদেরকে সে ব্যাপারে অবগত করার ধর্মীয় দায়িত্ব রয়েছে তাদের। নিজের আক্রান্ত হওয়ার তথ্য গোপন রাখাটা অন্যদের মানবাধিকারের লঙ্ঘন।

এপ্রিলের মাঝামাঝি সময় থেকে লকডাউন শিথিল করার পর দেশটির পাঁচটি প্রদেশের বিভিন্ন শহরে আবারও করোনায় প্রাদুর্ভাব বৃদ্ধি পেয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে রবিবার থেকে এসব শহরে কঠোর বিধি-নিষেধের পাশাপাশি উন্মুক্ত স্থানে মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক করা হয়েছে জনসাধারণের জন্য।

  •  
  •  
  •  
  •