বছরে ৯০০ কোটি ডলার ব্যয় তামাক কোম্পানিগুলোর

নিউজ ডেস্কঃ

তামাক কোম্পানিগুলো বিশ্বব্যাপী তরুণদের নিজস্ব ব্র্যান্ডের প্রতি আকৃষ্ট করতে বছরে ৯০০ কোটি ডলার ব্যয় করে বলে তামাকবিরোধী সংগঠন প্রজ্ঞা’র এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে।

আন্তর্জাতিক যুব দিবস উপলক্ষে বুধবার এক বিবৃতিতে প্রজ্ঞা বলেছে, “তরুণ জনগোষ্ঠীর ওপর নির্ভর করেই বাংলাদেশ ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত দেশের কাতারে উপনীত হতে চায়।

“যাদের দক্ষতা ও সামর্থ্যের উপর নির্ভর করে গড়ে উঠবে বাংলাদেশের ভবিষ্যৎ সম্ভাবনাময় সেই তরুণ জনগোষ্ঠী শুধু তামাকের কারণে দেশের সম্পদ না হয়ে বোঝা হয়ে দাঁড়াতে পারে।”

প্রজ্ঞা জানায়, টোব্যাকো অ্যাটলাসের সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী বাংলাদেশে ১০ থেকে ১৪ বছর বয়সীদের মধ্যে তামাক ব্যবহারকারীর সংখ্যা ১ লাখ ৭২ হাজারের বেশি।

“ধূমপায়ীর এই হার মানব উন্নয়ন সূচকে মধ্যম সারির অন্যান্য দেশগুলোর তুলনায় বাংলাদেশে ১.৮৬ শতাংশ বেশি, যা অত্যন্ত উদ্বেগজনক। ইউএস সার্জন জেনারেল রিপোর্ট ২০১৪ অনুযায়ী, প্রায় ৯০ শতাংশ সিগারেট ধূমপায়ী ১৮ বছর বয়সের মধ্যে প্রথমবার ধূমপান শুরু করে।”

প্রজ্ঞা’র নির্বাহী পরিচালক এবিএম জুবায়ের বলেন, “তামাকাসক্ত অসুস্থ তরুণ প্রজন্ম উন্নত দেশের কাতারে বাংলাদেশকে নিয়ে যেতে কোনোভাবেই সাহায্য করার ক্ষমতা রাখে না। এজন্য তামাকের ছোবল থেকে তরুণ সমাজকে রক্ষা করতে হবে, যা এখন সময়ের দাবি।”

জুবায়ের বলেন, তামাক ব্যবহারজনিত রোগে বাংলাদেশে বছরে ১ লাখ ২৬ হাজার মানুষ মারা যায়।

“তামাক কোম্পানিগুলো এই ভোক্তা হারানোর শূন্যতা পূরণে শিশু-কিশোর ও তরুণদের টার্গেট করে। এই তরুণদের রক্ষা করা এখন সকলের দায়িত্ব।”

  •  
  •  
  •  
  •