গাইবান্ধায় প্রতিপক্ষের মারধরে আহত কৃষকের মৃত্যু

জিল্লুর রহমান পলাশ, গাইবান্ধা প্রতিনিধি :

জেলার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলায় জমি নিয়ে বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষের মারধরে আহত হাফিজার রহমান (৭০) নামে এক কৃষকের মৃত্যু হয়েছে। বগুড়া শহিদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসাপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মঙ্গলবার ভোর রাতে মারা যান হাফিজার রহমান।হাফিজার রহমান গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার শালমারা ইউনিয়নের উলিপুর গ্রামের মৃত জামাত উল্লা প্রধানের ছেলে।স্থানীয়রা জানায়, হাফিজার রহমানের সাথে একই গ্রামের লুৎফর রহমানের ছেলে জাহাঙ্গীর আলমের সাড়ে ৪ বিঘা জমি নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিল। সম্প্রতি ওই বিরোধপূর্ণ জমিতে হাল চাষ করতে যান হাফিজারের লোকজন। পরে খবর পেয়ে জাহাঙ্গীরের লোকজন বাঁধা দেয়। এর জের ধরে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার দিকে জাহাঙ্গীর আলম হাফিজার রহমান বাড়ি থেকে ডেকে বের করেন। এসময় হাফিজার রহমান বাড়ির সামনে আসলে জাহাঙ্গীর ও তার লোকজন হাফিজারকে বেদমভাবে মারটির করে ফেলে রেখে যান। পরে আশপাশের লোকজন গুরুত্বর আহত অবস্থায় হাফিজারকে উদ্ধার করে বগুড়া শহিদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসাপাতালে ভর্তি করেন। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মঙ্গলবার ভোর রাতে হাফিজারের মৃত্যু হয়। নিহত হাফিজারের ছেলে তারা মিয়া জানান, তার বাবাকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে গিয়ে মারধরের ফলে তার মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় তিনি জাহাঙ্গীর আলম ও তার লোকজনের বিরুদ্ধে গোবিন্দগঞ্জ থানায় হত্যা মামলা দায়ের করবেন।গোবিন্দগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোজাম্মেল হক বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, এ ঘটনায় সকাল পৌনে ১২টা পর্যন্ত তিনি এখনো কোন লিখিত অভিযোগ পাননি। অভিযোগ পেলে জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

  •  
  •  
  •  
  •  
ad0.3