ফাইনালে বার্সেলোনা

নিউজ ডেস্কঃ

কোপা দেলরের ফাইনালে উঠতে কঠিন সমীকরণ মেলাতে হতো বার্সেলোনাকে। দ্বিতীয় সেমিফাইনালে সেভিয়ার বিপক্ষে জিততে হতো বড় ব্যবধানে। অবশেষে সেই পরীক্ষায় সফল হয়েছে কাতালানরা। শ্বাসরুদ্ধকর জয় নিয়ে ফাইনাল নিশ্চিত করেছে রোনাল্ড কোম্যানের দল।

ঘরের মাঠে গতকাল বুধবার সেমিফাইনালের ফিরতি লেগে সেভিয়াকে ৩-০ গোলে হারায় বার্সা। তবে এগিয়ে থেকেও শেষ দিকে গোল না এলে হতাশায় ডুবতে হতো বার্সাকে।

কারণ প্রথম লেগে সেভিয়া নিজেদের মাঠে ২-০ গোলে জিতেছিল। তাই ন্যু-ক্যাম্পে বার্সাকে জিততে হতো বড় ব্যবধানে। অতিরিক্ত সময়ে সেই পরীক্ষায় সফল হতে গোল এনে দেন জেরার্ড পিকে ও মার্টিন ব্র্যাথওয়েট। অতিরিক্ত সময়ের ওই দুই গোল বার্সাকে পৌঁছে দেয় প্রতিযোগিতার ফাইনালে। মোট দুই লেগ মিলে ৩-২ ব্যবধানে এগিয়ে থেকে ফাইনালের টিকেট পেয়েছে বার্সেলোনা।

ঘরের মাঠে এদিন শুরু থেকেই দাপট ছিল বার্সার। ম্যাচের ৬৮ শতাংশ সময় বল দখলে রেখে প্রতিপক্ষ শিবিরে ২২বার আক্রমণ করে বার্সা। যার মধ্যে আটটিই ছিল অন টার্গেট শট। বিপরীতে ছয়বার আক্রমণ করা সেভিয়ার অন টার্গেট শট ছিল তিনটি।

ঘুরে দাঁড়াতে মরিয়ে বার্সা গোল পেয়ে যায় শুরুতেই। উসমান দেম্বেলের কল্যাণে ১২ মিনিটেই এগিয়ে যায় স্বাগতিকেরা।

তবে পরের গোল দুটি পেতে বেশ পরীক্ষা দিতে হয়েছে বার্সাকে। বারবার আক্রমণের পর হতাশ হয়ে যাওয়া বার্সা শিবিরে স্বস্তি ফেরে অতিরিক্ত সময়ে। ততক্ষণে দ্বিতীয় হলুদ কার্ড দেখে ফার্নান্দো মাঠ ছাড়লে ১০ জনের দলে পরিণত হয় সেভিয়া।

আক্রমণে ধার বাড়িয়ে অতিরিক্ত সময়ের চতুর্থ মিনিটে দ্বিতীয় গোল করেন পিকে। এরপরের মিনিটে ফাইনাল নিশ্চিত করা গোলটি করেন ব্রাথওয়েট। ফরে স্বস্তির জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে বার্সা।

  •  
  •  
  •  
  •