বিশ্ব নিরাপদ খাদ্য দিবস উপলক্ষ্যে বাকৃবিতে সেমিনার অনুষ্ঠিত

Food Safety

বাকৃবি প্রতিনিধিঃ

আজ ৭ জুন, বিশ্ব নিরাপদ খাদ্য দিবস। এ বছর দিবসটির প্রতিপাদ্য ‘ সেভ ফুড নাউ ফর এ হেলদি টুমরো’। দিবসটি উপলক্ষে একটি ভার্চ্যুয়াল সেমিনারের আয়োজন করেছে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় (বাকৃবি)।

সোমবার (৭ জুন) সন্ধ্যায় বাকৃবির ইন্টারডিসিপ্লিনারি ইন্সটিটিউট ফর ফুড সিকিউরিটি (আইআইএফএস) এর পক্ষ থেকে এই সেমিনারের আয়োজন করা হয়।

সেমিনারের বিষয়বস্তু ছিল “Coping Covid-19: Production and Consumption of Safe and Nutritious Food”

আইআইএফএসের পরিচালক প্রফেসর ড. ফরিদা ইয়াসমিন বারীর সভাপতিত্বে সেমিনারে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাকৃবি উপাচার্য প্রফেসর ড. লুৎফুল হাসান।

এ সময় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিন কাউন্সিলের আহবায়ক প্রফেসর ড. মোঃ নূরুল হক, কৃষি অনুষদের ডীন প্রফেসর ড. মো: আব্দুর রহিম, ছাত্রবিষয়ক উপদেষ্টা প্রফেসর ড. এ.কে.এম. জাকির হোসেন।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে প্রফেসর ড. এ.কে.এম. জাকির হোসেন বলেন- প্রায় ১৮ টি মন্ত্রনালয় খাদ্য ও খাদ্য সংশ্লিষ্ট বিষয়ের সাথে জড়িত যাদের মধ্যে সমন্বয় থাকা প্রয়োজন। যত্রতত্র এন্টিবায়োটিকের ব্যবহার, বিভিন্ন ধরণের ক্ষতিকারক রং ও ক্যামিক্যাল ব্যবহার বন্ধ করতে হবে বলে জানান তিনি।

প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে, খাদ্য নিরাপত্তায় বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের সক্ষমতা বাড়ানোর তাগিদ দেন এবং নীতি নির্ধারণে সহযোগিতা জন্য বাকৃবি’র গবেষকদের এগিয়ে আসার আহ্বান জানান।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে কৃষি অনুষদের ডীন প্রফেসর ড. আব্দুর রহিম বলেন, বাংলাদেশে খাদ্য আমদানির নামে ভেজাল খাদ্যে ভরে যাচ্ছে বাজার, যা এখনই কঠোর হস্তে দমন করতে হবে।

বাকৃবি ডীন কাউন্সিলের আহবায়ক প্রফেসর ড. নূরুল হক বলেন, খাদ্য সংরক্ষণ পদ্ধতির সীমাবদ্ধতার কারণে খাদ্যগুণ নষ্ট হচ্ছে যা আমাদের স্বাস্থ্যের জন্যে ক্ষতিকর। এছাড়া প্রাথমিক বিদ্যালয় সহ সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে খাদ্য নিরাপত্তা বিষয়টি যুক্ত করার পক্ষে মত দেন তিনি।

অনুষ্ঠানের সভাপতি ও আইআইএফএসের পরিচালক প্রফেসর ড. ফরিদা ইয়াসমিন বারী বলেন, খাদ্য নিরাপদ হলে সে খাদ্যই পারবে পর্যাপ্ত রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা তৈরি করে আমাদেরকে করোনার মতো মহামারী থেকে সুরক্ষা দিতে।

অনুষ্ঠানে আমন্ত্রিত বক্তারা নিরাপদ খাদ্য উৎপাদনে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের সক্ষমতা বাড়ানোর তাগিদ দেন। নিরাপদ খাদ্য নিশ্চিতে সামাজিক, পারিবারিক ও ধর্মীয় নৈতিক শিক্ষার উপরও গুরুত্ব আরোপ করেন।

অনুষ্ঠানে প্রধান মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন প্রফেসর ড. মোঃ তানভীর রহমান (মাইক্রোবায়োলজি এন্ড হাইজিন বিভাগ, বাকৃবি))।

আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাউরেস এর পরিচালক প্রফেসর ড. মোঃ আবু হাদী নূর আলী খান এবং প্রফেসর ড. মোঃ কামরুল হাছান, উদ্যানতত্ত্ব বিভাগ, বাকৃবি।

অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনায় ছিলেন আইআইএফএস এর সহযোগী পরিচালক ড. রাখী চক্রবর্ত্তী।

  •  
  •  
  •  
  •  
ad0.3

Tags: , ,