দাবি পূরণ না হওয়ায় অবস্থান কর্মসূচি অব্যাহত রেখেছে বাকৃবি গণতান্ত্রিক শিক্ষক ফোরাম

নিজস্ব প্রতিবেদক:

বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষক লাঞ্ছনার ঘটনায় বারবার সময়সীমা পেরিয়ে গেলেও দাবি পূরণ না হওয়ায় অবস্থান কর্মসূচি অব্যাহত রেখেছে গণতান্ত্রিক শিক্ষক ফোরাম, বাকৃবি। আজ দুপুর ১২টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের বঙ্গবন্ধু চত্ত্বরে পুনরায় তারা‌ অবস্থান কর্মসূচি পালন করেছে।

এসময় ড. আফরিনা মুস্তারি সবুজ বাংলাদেশ24 কে জানান, তাদের ৩ দফা দাবি পূরণে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের বেঁধে দেয়া সময়ের পরও দাবি পূরণ না হওয়া এবং প্রশাসনের পক্ষ থেকে কোনো সদুত্তোর না পাওয়ায় তারা এই অবস্থান কর্মসূচি পালন করছেন।

উল্লেখ্য যে, গত ১০ জানুয়ারী প্রফেসর ড. পূর্বা ও সহকারী প্রক্টর ড. আফরিনা মুস্তারি অফিস রুমে বিশ্ববিদ্যালয়ের কয়েকজন ছাত্রদের হাতে লাঞ্ছিত ও আহত হন। এর প্রতিবাদে গণতান্ত্রিক শিক্ষক ফোরামের একাংশটি সংবাদ সম্মেলনসহ বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করছে।

এরপর গত ১৬ জানুয়ারী তিনটি দাবী নিয়ে সংগঠনটি বিশ্ববিদ্যালয়ের বঙ্গবন্ধু চত্ত্বরে প্রথম অবস্থান কর্মসূচী পালন করে। দাবীগুলো হলো প্রথমত, ১৭/১/২০২৩ মঙ্গলবারের মধ্যে শিক্ষক লাঞ্ছনা বিষয়টি তদন্তের জন্য গঠিত পক্ষপাতদুষ্ট কমিটি পূনর্গঠন। দ্বিতীয়ত, দ্বায়িত্বে উদাসীন পক্ষপাতদুষ্ট প্রক্টর ও দু’জন সহকারি প্রক্টরের অপসারণ এবং তৃতীয়ত সুষ্ঠ তদন্ত করে শিক্ষক লাঞ্ছনার সাথে জড়িত ছাত্র নামধারীদের শাস্তির আওতায় আনয়ন।

এরপর বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের সচিবালয়ে প্রায় সাড়ে তিন ঘন্টা অবস্থান করেন অবস্থান কর্মসূচিতে অংগ্রহনকারী প্রায় ৪০ জন শিক্ষক। পরে উপাচার্য ১৮ তারিখের মধ্যে দাবী পূরণের আশ্বাস দেওয়ায় তারা আপাতত ওই কর্মসূচি স্থগিত করেন।

গত১৯ জানুয়ারী উপাচার্যের বেঁধে দেয়া দ্বিতীয়দফা সময়সীমা পেরিয়ে গেলেও ফল না পাওয়া ও ক্যাম্পাসে তার অবস্থান না করায় রেজিস্ট্রার কক্ষে অবস্থান কর্মসূচি পালন করে গণতান্ত্রিক শিক্ষক ফোরাম।

এরই পরিপ্রেক্ষিতে প্রশাসনের পক্ষ থেকে কোনো সদুত্তোর না পেয়ে গণতান্ত্রিক শিক্ষক ফোরাম পুনরায় আজ অবস্থান কর্মসূচি পালন করেছে।

এসময় সেখানে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষক-শিক্ষিকাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

 

  •  
  •  
  •  
  •  
ad0.3